• Mon. Nov 28th, 2022

পুজোয় দেব অনুরাগীদের জন্য বড় সুখবর!

এখন ৫০ শতাংশ দর্শক নিয়ে প্রেক্ষাগৃহ খুলে গিয়েছে। দীর্ঘ দিন পর বড় পর্দায় ভাল ছবি দেখার ইচ্ছে নিয়ে দর্শকেরাও পা রাখছেন প্রেক্ষাগৃহে। এই গোটা পরিস্থিতি যখন ধীরে ধীরে সিনেপ্রেমীদের অনুকূলে, ঠিক তখনই বৃহস্পতিবার পুজোর মুক্তি ঘোষণা করলেন অভিনেতা দেব অধিকারী। দেব এন্টারটেনমেন্ট ভেঞ্চার্স নেট মাধ্যমে জানায় যে, এ বারের পুজোয় অভিনেতা নাকি দর্শক-অনুরাগীদের নিয়ে যাবেন বোম্বাগড়ে! অর্থাৎ তাঁর বহু প্রতীক্ষিত ছবি ‘হবু চন্দ্র রাজা গবু চন্দ্র মন্ত্রী’ মুক্তি পাবে এই পুজোতে।

সালটা ২০১৯, অভিনেতা-প্রযোজক দেব এবং পরিচালক অনিকেত চট্টোপাধ্যায় ঘোষাণা করেছিলেন তাঁদের আগামী ছবি ‘হবু চন্দ্র রাজা গবু চন্দ্র মন্ত্রী’র কথা। দক্ষিণারঞ্জন মিত্র মজুমদারের দু’টি গল্পকে নিয়ে ‘দাদা মশাইয়ের থলে’র ছোটদের জন্য ছবি বানিয়েছেন অনিকেত। এই গল্পে, হবু চন্দ্র রাজার রাজ্যের নাম হল বোম্বাগড়। সে এক মজার রাজ্য। সেখানে রাজা আর তাঁর মন্ত্রী গবু চন্দ্রের ‘একুশে আইন’ চলে। হবু চন্দ্র রাজার রানি কুসুম কুমারী। রূপকথার ঢঙে, কৌতুকে মোড়া এই ছবি আদতে একুশ শতকের কথাই বলবে, এমনটাই জানিয়েছিলেন তাঁরা। এই ছবিতে রাজা-রানি-মন্ত্রীর ভূমিকায় অভিনয় করেছেন শাশ্বত চট্টোপাধ্যায়, অর্পিতা চট্টোপাধ্যায়, খরাজ মুখোপাধ্যায় প্রমুখ অভিনেতারা। যদি অতিমারি থাবা না বসাতো তাহলে ২০২০-র গরমের ছুটিতে মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল এই ছবির। এবার সেই মুক্তি পিছিয়ে হচ্ছে ২০২১-এর পুজোয়।

দেবের সৌজন্যে এই ছবির হাত ধরে প্রথমবার ‘বাহুবলী’-র সেটে কোনো বাংলা ছবির শ্যুট হয়েছে। এই ছবির সঙ্গীত পরিচালনার দায়িত্বে কবীর সুমন। তাঁর হাত ধরে দর্শক খেয়াল শুনতে পাবেন। সকলে এবার মুখিয়ে আছেন ‘হবু চন্দ্র রাজা গবু চন্দ্র মন্ত্রী’র মুক্তির জন্য।